মঙ্গলবার ২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সর্বশেষ
মঙ্গলবার ২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

গাজীপুরে পুলিশের নির্যাতনে মৃত্যুর অভিযোগে সড়ক অবরোধ ও অগ্নিসংযোগ ।

মোঃ আব্দুস সালাম গাজীপুর প্রতিনিধি :

গাজীপুরের ভোগড়া এলাকায় পুলিশের নির্যাতনে এক ব্যক্তির মৃত্যুর অভিযোগ তুলে ঢাকা-ময়মনসিংহ ও ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছে এলাকাবাসী। এসময় পুলিশের চারটি মোটরসাইকেলে আগুন ধরিয়ে দেয় বিক্ষুব্ধরা।

১৮ জানুয়ারি বুধবার সকাল সাড়ে নয়টা থেকে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসি ওই ব্যবসায়ীর মৃত্যুর ঘটনায় অভিযুক্ত পুলিশের বিচারের দাবিতে এই বিক্ষোভ করেন।

এ ঘটনায় দেড় ঘণ্টা বন্ধ থাকে মহাসড়কে যান চলাচল। দুর্ভোগে পড়েন যাত্রীরা।

নিহত ওই ব্যবসায়ী ৪০ বছর বয়সী রবিউল ইসলাম। তিনি গাজীপুর মহানগরীর ভোগরা বাইপাস পেয়ারা বাগান এলাকার বাসিন্দা। পেশায় একজন সুতার ব্যবসায়ী।

নিহতের স্বজন ও স্থানীয়দের অভিযোগ, মোবাইলে বিটকয়েন দিয়ে জুয়া খেলার অভিযোগে১৪ জানুয়ারি শনিবার রাতে চারজনকে আটক করে বাসন থানা পুলিশ। পরদিন তিনজনকে ছেড়ে দিলেও ব্যবসায়ী রবিউল ইসলামকে থানায় আটকে রাখা হয়।

১৭ জানুয়ারি মঙ্গলবার রাতে বাসন থানার একদল পুলিশ ওই ব্যবসায়ীর বাড়িতে গিয়ে তার স্ত্রীর কাছ থেকে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নিয়ে আসেন। পরে রাতে তারা জানতে পারেন রবিউল মারা গেছেন।

সকালে এ ঘটনা এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে বিক্ষিপ্ত এলাকাবাসী লাঠিসোটা নিয়ে প্রথমে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক এবং পরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে অবরোধ সৃষ্টি করে। একপর্যায়ে তারা ওই মহাসড়কে চারটি মোটরসাইকেলে আগুন ধরিয়ে দেয়।

এছাড়া বাইপাস মোড়ে পুলিশ বক্সে হামলা ও ব্যাপক ভাংচুর চালায় বিক্ষুব্ধরা।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কাজ করে। টিয়ারগ্যাস শেল নিক্ষেপ করে বিক্ষুব্ধদের মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দিলে দেড় ঘণ্টা পর যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

পুলিশ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানায়, একটি গুজবকে কেন্দ্র করে স্থানীয়রা রাস্তায় ভাঙচুর ও বিক্ষোভ করছে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে চেষ্টা করছে।

জিএমপি উপ-পুলিশ কমিশনার (অপরাধ) ইলতুৎমিস বলেন, “পুরো বিষয়টি আমাদের কাছে এখনও পরিষ্কার নয়। সড়ক দুর্ঘটনায় একজন শ্রমিক মারা গেছেন এই গুজবে বিভিন্ন জায়গায় রাস্তা বন্ধ হয়ে যায়। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সবাইকে বোঝানোর চেষ্টা করছি, এখানে কেউ জড়িত থাকলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তিনি আরও বলেন, কথা বললে তারা বুঝতে পেরেছেন। তারা আসলে না জেনেই চলে আসেন। কয়েকটি গাড়ি পোড়ানো হয়েছে। পুলিশের দু’জন সদস্য আহত হয়েছেন।

Spread the love

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *